বেতনভোগী করদাতা কিভাবে আয়কর বিবরণী পূরণ করবেন?

/, Income Tax, Tax Filing/বেতনভোগী করদাতা কিভাবে আয়কর বিবরণী পূরণ করবেন?

বেতনভোগী করদাতা কিভাবে আয়কর বিবরণী পূরণ করবেন?

বেতনভোগী করদাতা কিভাবে আয়কর বিবরণী পূরণ করবেন?

গত আয় বছরে অর্থাৎ ২০১৬-১৭ আয় বছরে আপনার বেতন থেকে করযোগ্য আয় কি ২,৫০,০০০ টাকা অতিক্রম করেছে? যদি করে থাকে তাহলে ২০১৭-১৮ কর বর্ষে আপনাকে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডে আয়কর বিবরণী জমা দিতে হবে।

এখন প্রশ্ন হলো আয়কর বিবরণী কোথায় পাবেন? আপনার নিকটস্থ আয়কর অফিস বা জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের ওয়েবসাইটে রিটার্ন ফরম পাবেন। তবে আপনি যদি ঘরে বসে সহজে অনলাইনে আপনার আয়কর প্রস্তুত করতে চান  তাহলে  আজই  bdtax.com.bd  তে লগইন  করুন।

বেতনভোগী করদাতা সাধারণত আইটি ১১গ পূরণ করে থাকেন। তবে কেবল বেতনভোগী করদাতাগণ চাইলে আইটি ১১ঙ ব্যবহার করতে পারেন।

এটা খুবই সহজ। মাত্র তিন পৃষ্টার এই ফর্মটি আপনি সহজেই পূরণ করতে পারেন। আজ আমি শুধু এই ফর্মটি নিয়ে আপনাদের সাথে আলোচনা করবো।

আগামি লেখায় থাকবে আইটি ১১গ কিভাবে পূরণ করবেন তা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা। এবং একে একে সব পেশাজীবী কিভাবে তাদের রিটার্ন ফর্মটি পূরণ করবেন তাও আলোচনা করবো।

গত ১ জুলাই থেকে রিটার্ন দাখিল করা শুরু হয়ে গেছে। চলবে আগামী ৩০ নভেম্বর পর্যন্ত। শেষ দিকে যেন তাড়াহুড়া করতে না হয় তাই রিটার্ন ফরম পূরণ করার আগে দরকারি কাগজপত্র নিয়ে বসুন। তাতে ফরমটি এক বসাতেই পূরণ করতে সক্ষম হবেন।  দরকারি কাগজপত্র আগে থেকেই সংগ্রহ করে নিন। এতে করে শেষ দিকে ঝামেলায় পড়েতে হবে না।

কেবলমাত্র বেতনভোগী করদাতাগণ যে তিনটি পাতা পূরণ করবেন চলুন তা একে একে নিচ থেকে জেনে নেই।

সাধারন তথ্য

এই পাতায় উপরে ডান দিকে আপনার ছবি লাগাতে হবে। আর বাম দিকে কর বর্ষ লিখতে হবে। যেহেতু আপনি ২০১৬-১৭ আয় বর্ষের কর দিতে যাচ্ছেন তাই আপনার কর বর্ষ হবে ঠিক এর পরের বছর অর্থাৎ ২০১৭-১৮। এর ঠিক নিচে বক্সের মধ্যে আপনার নাম, টিন, জাতীয় পরিচয় পত্রের নাম্বার, জন্ম তারিখ, ই-মেইল, স্বামী/স্ত্রীর টিন অথবা নাম লিখতে হবে। ক্রম অনুযায়ী এই তথ্যগুলোর পর আপনি যে সার্কেল এবং কর অঞ্চলের অধীন তা লিখতে হবে। এই তথ্যটা পাবেন আপনার টিন থেকে। সেখান থেকে দেখে দেখে পূরণ করে নিন।

আবাসিক মর্যাদার ঘরে আপনি নিবাসি না অ-নিবাসি তা টিক চিহ্ন দিয়ে উল্লেখ করুন। এবার আপনি যে কোম্পানিতে চাকরি করেন সে কোম্পানির নাম এবং ঠিকানা লিখতে হবে। এর নিচে আপনার বর্তমান ঠিকানা, অফিসের টেলিফোন নাম্বার এবং আপনার মোবাইল নাম্বার লিখতে হবে। এই তথ্যগুলো পূরণ করলেই আপানার প্রথম পাতা পূরণ করা হয়ে যাবে। বুঝতেই পারছেন অনেক সহজ।

আয়ের বিবরণ

যেদিন আপনার আয় বর্ষ শেষ হচ্ছে সেদিনসহ মাসের নাম এবং বছর উপরে লিখতে হবে। এর নিচে প্রথমেই আপনার বেতন থেকে সারা বছর ধরে কতো আয় হয়েছে যেটা করযোগ্য তা উল্লেখ করতে হবে। আইটি ১১গ ফরমে বেতন থেকে আয়ের জন্য আলাদা একটা ফরম পূরণ করলেও এখানে আপনাকে তা করতে হবে না। যেহেতু আপনি এখানে আর কোন কাগজ সংযুক্ত করছেন না তাই আপনি আলাদা একটা কাগজে হিসেব করে বেতন থেকে মোট  করযোগ্য আয় এখানে লিখবেন।

এর নিচে আপনার যদি বাড়ি ভাড়া, কৃষি বা অন্য কোন খাত থেকে আয় থাকে তাহলে লিখতে হবে। আপনার যদি শেয়ার থেকে লভ্যাংশ বা ব্যাংক থেকে কোন রকমের সুদ বা অন্য কোন আয় থেকে থাকে তাহলে সেই আয় চার নাম্বার ক্রমিকে লিখতে হবে।

Bdtax Income

BDtax.com.bd – Income

উপরোক্ত খাতে আপনার আয় লিখার পরে পেয়ে যাবেন আপনার সারা বছর ধরে মোট কর যোগ্য আয়। তার উপর নির্ধারিত হারে কর নির্ণয় করে এর নিচে লিখতে হবে।

আপনার যদি বিনিয়োগ থেকে থাকে তাহলে তার উপর রেয়াত পাবেন এবং তা সাত নাম্বার ক্রমিকে লিখতে হবে। মোট করযোগ্য আয় থেকে কর রেয়াত বাদ দিলেই এ বছরের কর দায় বেরিয়ে আসবে।

এর পর আপনি যেখানে চাকরি করেন সেখান থেকে প্রতি মাসে বেতন দেওয়ার সময় উৎসে কর্তনকৃত কর বাদ দিলেই আপনি পেয়ে যাবন আপনার নীট কর যেটা আপনাকে চালান/পে অর্ডার/ ব্যাংক ড্রাফট এর মাধ্যমে জমা দিতে হবে।

আপনার যখন উপরের সব তথ্য পূরণ হয়ে যাবে তার নিচেই একটা প্রতিপাদন দিতে হয় এবং তার নিচে আপনার স্বাক্ষর দিতে হয়। এখানে মূলত অঙ্গিকার করা হয় যে আপনার দেওয়া যাবতীয় তথ্য, দরকারি কাগজপত্র আপনার জানা মতে সম্পূর্ণ এবং সঠিক।

পরিসম্পদ, দায় এবং ব্যয় বিবরণী

এটাই আপনার দেওয়া শেষ বিবরণী। তবে এই ফর্মটি সবার জন্য বাধ্যতামূলক নয়। যদি নিচের যেকোন একটি শর্ত পূরণ হয় কেবল তাহলেই আপনাকে এই বিবরণী দিতে হবেঃ

ক) আয় বছরের শেষ তারিখে মোট পরিসম্পদ এর পরিমান ২৫ লাখ টাকার অধিক হলে; অথবা

খ) আয় বছরের শেষ তারিখে মোটর গাড়ি (জীপ বা মাইক্রোবাসসহ) এর মালিকানা থাকলে; অথবা

গ) আয় বছরে কোন সিটি কর্পোরেশন এলাকায় কোন গৃহ-সম্পত্তি বা এপার্টমেন্টের মালিক হলে অথবা গৃহ-সম্পত্তি বা এপার্টমেন্টে বিনিয়োগ করলে।

BDTax Assetউপরে বর্ণীত তিনটি শর্তের যেকোন একটা যদি আপনার থেকে থাকে তাহলেই কেবল পরিসম্পদ, দায় এবং ব্যয় বিবরণী পূরণ করতে হবে।

এই ফর্মে আপনার কৃষি-অকৃষি সম্পদ, বিনিয়োগ, মোটর গাড়ি, আসবাবপত্র, সোনা, নগদ টাকা এবং ব্যাংকে জমা টাকাসহ অন্যান্য সম্পদ উল্লেখ করতে হবে।

এই সম্পদ থেকে আপনার যদি কোন দায় থাকে যেমন যদি কারো কাছ থেকে ঋণ নিয়ে থাকেন বা  ব্যাংকের কাছে থেকে যদি ঋণ নিয়ে থাকেন তা বাদ যাবে। বাদ যেওয়ার পরেই বেরিয়ে আসবে আপনার নীট সম্পদের পরিমান।

আয়কর রিটার্ন প্রাপ্তিস্বীকার পত্র

আপনি এতোক্ষণ ধরে যে ফর্মটি পূরণ করলেন তা যখন কর অফিসে জমা দিবেন তখন কর কর্মকর্তা এই প্রাপ্তিস্বীকার পত্রে স্বাক্ষর করে সীল দিয়ে আপনাকে ফেরত দিবেন। এটাই হলো আপনার প্রমাণ যে আপনি রিটার্ন ফর্মটি জমা দিয়েছেন।

কিভাবে রিটার্ন ফর্মটি পূরণ করবেন তা ধাপে ধাপে জেনে  গেলেন। এরপরও কি আপনার কাছে জটিল মনে হচ্ছে?  চিন্তার কিছু নেই। আপনি যে কোন সময়ে bdtax.com.bd লগইন করে আপনার রিটার্ন ফরম খুব সহজেই পূরণ করতে পারেন।

Jasim Uddin Rasel
Facebook

 

By | 2017-09-24T17:04:19+00:00 September 24th, 2017|Employee, Income Tax, Tax Filing|2 Comments

About the Author:

2 Comments

  1. Sk. Reazul Hashem October 11, 2017 at 5:45 am - Reply

    ধন্যবাদ জানাচ্ছি অসাধারন একটি পোর্টাল এর জন্য।
    আমার প্রশ্ন হচ্ছে, আমাদের যাদের বেতন এ কোন ধরনের Breakdown দেয়া নেই তাদের আয়কর কিভাবে হিসাব করবেন? যেমন আমার পুরাতন কোম্পানিতে আমার বেতন কয়েকটি ভাগে ভাগ ছিল;
    । মূল বেতন
    । বাড়ী ভাড়া
    । মেডিক্যাল
    । অন্যান্য

    যেখানে আমার বাড়ি ভাড়া এবং মেডিক্যাল এর খরচের উপর আয়কর দিতে হত না। কিন্তু আমার বর্তমান কোম্পানিতে এ ধরনের কোন প্রকার Breakdown না থাকার ফলে, আমাকে আমার সম্পূর্ন বেতনের উপরে আয়কর দিতে হবে। যা আমার জন্য খুবই সমস্যা কর। এ ব্যাপারে আপনারা কি আমাকে / আমাদের কে কোন ভাবে সহায়তা করতে পারবেন ?

    আমাদের যাদের বেতনের কোন ধরনের Breakdown নেই, তাদের জন্য কি কোন ধরনের নিতিমালা আছে ?

    ধন্যবাদ।

    • Jasim Uddin Rasel March 16, 2018 at 2:53 am - Reply

      অনেক ক্ষেত্রেই বেতন বিভিন্ন খাতে ভাগ করে দেওয়া হয় না। এক্ষেত্রে অ্যাকাউন্টস সেকশন ভাগ করে দিবেন। আপনি তাদের সাথে যোগাযোগ করলেই তারা এটা করে দিবে।

      অথবা যারা ট্যাক্স সম্পর্কে জানেন তাদের সাথে কথা বলতে পারেন।

      ধন্যবাদ।

Leave A Comment

*

Shares